Entertainment

অভিনয় জগৎ-কে বিদায় জানিয়ে পারিবারিক ব্যবসা নিয়ে ব্যস্ত ৮০-র দশকের সুপারস্টার।

অভিনয়ে ফেরার ইচ্ছে নেই জানালেন এক সময়কার জনপ্রিয় নায়ক কুমার গৌরব

একসময় তার হেয়ার স্টাইল নকল করতেন স্বয়ং কিং খান ,বলিউডের ভাইজানকেও একসময় তিনি জিন্স ধার দিয়েছিলেন। তাঁর প্রশংসায় পঞ্চমুখ ভাইজান থেকে বাদশা, কি বুঝতে পারছেন না কার কথা বলছি ? কুমার গৌরব কে মনে আছে ? ঠিক ধরেছেন এখানে  সুপারস্টার রাজেন্দ্রকুমারের ছেলে ‘লাভস্টোরি’-র সেই চকলেট বয় ইমেজের হিরোর কথাই বলা হচ্ছে।তাঁর আসল নাম মনোজ তুলি। একসময় বহু তরুণীর হার্টথ্রব ছিলেন তিনি। প্রথম ছবিতেই তাঁর চকলেট বয় ইমেজ মন কেড়েছিল সকলের। তারপর একে একে ‘তেরি কসম’ সহ বেশ কয়েকটি ছবি প্রশংসা কুড়িয়েছিল দর্শকমহলে। এই ভাবেই জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছে যান তিনি আর সেই সময় তাঁর প্রথম  ছবির নায়িকা বিজয়েতা পন্ডিতের সঙ্গে তাঁর সম্পর্কের সূচনা হয়। সম্পর্ক এতদূর গড়ায় যে শেষ পর্যন্ত তারা বিয়ে করবে এমনটাই সিদ্ধান্ত নেয়, কিন্তু বাবা রাজেন্দ্র কুমার চেয়েছিলেন রাজ্ কাপুরের মেয়ে রিমাকে পুত্রবধূ করতে কিন্তু বিজয়েতার সঙ্গে প্রেম থাকায় বাগদান হয়ে যাওয়ার পর রিমার সঙ্গে আর সাত পাকে বাঁধা পড়া হয় নি কুমার গৌরবের। অন্যদিকে বাবার অমতে  বিজয়েতার সঙ্গে সম্পর্কও হয় নি শেষ পর্যন্ত। আর এরপর একের পর এক ছবি ফ্লপ করায় নায়ক ছেড়ে সহ-অভিনেতার চরিত্রে অভিনয় করতে শুরু করেন তিনি, আর তখনই সঞ্জয় দত্তের সঙ্গে বন্ধুত্ত্ব,তাঁর জীবনের মোড় ঘুরিয়ে দেয়। সঞ্জয় দত্তের সঙ্গে নাম ছবিতে অভিনয় করে বেশ প্রশংসা কুড়ান তিনি। আর সেই সময় তিনি প্রেমে পড়েন সঞ্জয় দত্তের বোন নম্রতা দত্তের। পরবর্তীকালে তাঁরা বৈবাহিক বন্ধনে আবদ্ধ হন। বর্তমানে তাঁরা সুখে সংসার করছেন| তাঁদের দুজন সন্তানও আছে। ১৯৯৬ সালে  ‘সৌতেলা ভাই ‘   ছবির শেষে  লম্বা ছুটি কাটানোর পর ২০০৪ সালে ইংরিজি ছবি ‘গুইয়ালা’-তে শেষ বারের মতো দেখা যায় তাঁকে। বর্তমানে পারিবারিক ব্যবসা নিয়েই ব্যস্ত তিনি। অভিনয়ে আর ফেরার ইচ্ছে নেই তাঁর। এমনটাই জানিয়েছেন একসময়কার বহু তরুণীর স্বপ্নের রাজপুত্র কুমার গৌরব।

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: