Big Story

দীর্ঘিদিনের অবসানের পর এক রাজ্যে আসছে শিথিলতা

স্বস্তির মুখে অটো চালকেরা, ১৫ এর জায়গায় ৪০ টি রুটে চলবে বাস

পল্লবী : রাজ্যে দীর্ঘ সময় ধরে চলা লকডাউনে আজ থেকে আসছে শিথিলতা। সরকারি বাস পরিবহন ব্যবস্থা আগে থেকেই বহাল ছিল গত দু’সপ্তাহ ধরে শহরে ১৫টি রুটে আজ কলকাতায় বাড়বে সেই বাসের সংখ্যা। এ বার থেকে শহরের ৪০টি রুটে সরকারি বাস চলবে বলে জানিয়েছে রাজ্য পরিবহণ নিগম। এ প্রসঙ্গে রাজ্য পরিবহণ নিগমের ম্যানেজিং ডিরেক্টর রাজনবীর সিংহ কপূর বলেন, ”যাত্রীদের প্রয়োজনের কথা মাথায় রেখেই রুট এবং বাসের সংখ্যা বাড়ছে। আশা করছি যাত্রীদের সমস্যা কমবে।”

বাস চলবে বেহালা, ঠাকুরপুকুর, জোকা, আমতলা, বারুইপুর, বারাসত, নিউ টাউন, সাপুরজি, ব্যারাকপুর-সহ একাধিক জায়গায়। কলকাতা ছাড়াও দুই ২৪ পরগনা এবং হাওড়ার একাংশকে ওই পরিষেবার আওতায় আনা হয়েছে। যাতে সাধারণ মানুষকে রাস্তায় বেরিয়ে বিপদে না পড়তে হয়।

তাহলে চলুন দেখা যাক কোন এলাকা গুলি তালিকায় আসলো –

বেহালার দিকে যে সব রুটে বাস পরিষেবা চালু হচ্ছে, তার মধ্যে রয়েছে পর্ণশ্রী-নিউ টাউন, শকুন্তলা পার্ক-করুণাময়ী, যাদবপুর-জনকল্যাণ, শকুন্তলা পার্ক-কলকাতা স্টেশন-সহ আরও কিছু রুট। নীলগঞ্জ বাসডিপো থেকে ডানলপ এবং বি টি রোড হয়ে গন্তব্যের দিকে যাওয়া সরকারি বাসের সংখ্যাও বাড়ানো হচ্ছে। এ ছাড়াও আমতলা, জোকা এবং বারুইপুর থেকে বিভিন্ন রুটে বাস চলাচল শুরু হতে চলেছে। পার্ক সার্কাস-ডানকুনি, সোদপুরের ঘোলা থেকে হাওড়া-সহ বিভিন্ন রুটেও বাস চালু হচ্ছে। পূর্ব কলকাতার ক্ষেত্রে সরকারি বাস চলবে সল্টলেক, নিউ টাউন, ইকো স্পেস, সাপুরজি-সহ বেশ কিছু জায়গায় । এ ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য রুটগুলো হল টালিগঞ্জ-করুণাময়ী-নিউ টাউন, উল্টোডাঙা-সাপুরজি এবং জোকা-ইকো স্পেস। তবে আরো একটি স্বস্তির বিষয় গুরুত্বপূর্ণ রুটগুলিতে পরে যাত্রী-সংখ্যার কথা মাথায় রেখে পরিস্থিতি অনুযায়ী বাসের সংখ্যা বাড়ানো হবে এমনটাই জানিয়েছে সংস্থা।

স্বস্তি ফিরছে অটো চালকদের আজ, বুধবার থেকে শহরের রাস্তায় নামবে অটোও। ফলে নিত্যযাত্রীদের যাতায়াতে কিছুটা সুবিধা হওয়ার পাশাপাশি তাঁদের সংখ্যাও বাড়বে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে সংক্রমণ এড়াতে এবং সামাজিক দূরত্ব-বিধির কথা মাথায় রেখে আপাতত দ্বিগুণ ভাড়ায় দু’জন করে যাত্রী নিয়ে অটো চলবে। নির্দিষ্ট ভাড়ার থেকে ৭-৮ টাকা বেশি দিতে হচ্ছে। উত্তর থেকে দক্ষিণ কলকাতা, সর্বত্রই অটোর দেখাও মিলছে । আর সেটিই তো স্বাভাবিক এতদিন ঘরে বসে বন্ধ আয় তাই শুধু তারিখের অপেক্ষায় ছিলেন একাধিক চালকরা।

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: