Health

প্লাজমা থেরামি কাজে আসলেই বা কি, ক্রমশ বাড়ছে সংক্রমণের হার

ইতিমধ্যেই সংক্রমণের সংখ্যা ৩০,০০০ ছুঁই ছুঁই

পল্লবী : দেশে ক্রমশ বেড়েই চলেছে আক্রান্তের সংখ্যা। ইতিমধ্যেই সংক্রমণের সংখ্যা ৩০,০০০ ছুঁই ছুঁই। সরকারি পরিসংখ্যান অনুযায়ী, আক্রান্ত ২৯ হাজার ৯৭৪ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৫৯৪ জন, মৃত্যু বয়েছে ৫১ জনের। দেশে মোট মৃতের সংখ্যা ৯৩৭। আশার খবর, বহু করোনা রোগীই সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন। কেন্দ্রীয় পরিসংখ্যান অনুযায়ী সংখ্যাটা ৭,০২৭।

অন্যদিকে বার বার ধরে সঠিক সংখ্যা জানানোতে যে কারচুপি দেখিয়েছে রাজ্য তাদের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এই মুহূর্তে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫২২। যদিও কেন্দ্রের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, রাজ্যের করোনা আক্রান্ত ৭০০-র কাছাকাছি। রাজ্যের তরফে মঙ্গলবার জানানো হয়েছে মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৩ হাজার ২২৩ জনের। শেষ ২৪ ঘণ্টায় ১১৮০ জনের পক্ষে নমুনা পরীক্ষা করা সম্ভব হয়েছে।]

করোনা সংক্রমিত রাজ্য হিসেবে সবচেয়ে ভয়াবহ অবস্থায় রয়েছে মহারাষ্ট্র। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ৮৫৯০। মঙ্গলবারই নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫২২ জন। মোট মৃত্যু হয়েছে ৩৬৯ জনের। স্বাস্থ্যমন্ত্রকের রিপোর্ট অনুযায়ী হটস্পট হিসেবে নতুনভাবে চিহ্নিত হয়েছে কলকাতা, হাওড়া , দুই চব্বিশ পরগণা ও হুগলি।

দিল্লিতে শুরু করা হয়েছে প্লাজমা থেরামি, যার সাহায্যে সুস্থ হতে পারবে বিপুল সংখ্যক মানুষ। গায়িকা কণিকা যে কিছুদিন আগেই করোনা সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন তিনি প্লাজমা দেওয়ার আর্জি জানিয়েছেন সাস্থদপ্তরের কাছে। প্লাজমা দেওয়ার জন্য যা যা করণীয় তা সব কিছুই যথা শীঘ্রই করতে চান তিনি। অন্যদিকে, এখনো পর্যন্ত রাজ্য কি কেন্দ্র কেউই শুরু করতে পারলোনা পুল টেস্টিং। সংক্রমণের অধিক হার হওয়ার যেটি অন্যতম কারণ।

Show More

OpinionTimes

Bangla news online portal.

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: