Sports Opinion

বিশ্বকাপের ভবিষ্যৎ কী ? বোর্ড মিটিংয়ের পর কী জানাল আইসিসি দেখে নিন…

সমস্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে আগামী ১০ জুন ।

প্রেরনা দত্তঃ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল বৃহস্পতিবার কোনও সিদ্ধান্ত নিল না টি২০ বিশ্বকাপ নিয়ে। ১০ জুন হতে পারে এই নিয়ে সিদ্ধান্ত। করোনাভাইরাসের জন্য বিশ্ব জুড়ে বন্ধ রয়েছে সব ধরনের ক্রিকেট ইভেন্ট। যার ফলে সব সূচি নষ্ট হয়ে গিয়েছে। নতুন করে আবার সব কিছুর সূচি তৈরি করতে হচ্ছে। এর মধ্যেই আইসিসির অন্দরের তথ্যের নিয়ম বেশ কিছুদিন ধরে ভাঙা হচ্ছিল, যা নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।টি-20 বিশ্বকাপ নিয়ে কোন সিদ্ধান্তে পৌছতে পারল না বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থা ICC. কোভিড—19-এর জন্য স্তব্ধ হয়ে রয়েছে বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গন। এই বছরেই অক্টোবর মাসে অস্ট্রেলিয়াতে হওয়ার কথা টি-20 বিশ্বকাপ। সেই বিশ্বকাপ করা সম্ভব কিনা তা নিয়ে এখন জোর জল্পনা চলছে।

চেয়ারম্যান হিসেবে শশাঙ্ক মনোহরের মেয়াদকাল কী দু’মাস বর্ধিত করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হবে। এমনই নানা প্রশ্নের উত্তর জানতে বৃহস্পতিবার আইসিসি’র বোর্ড মিটিং’য়ের দিকে চোখ ছিল ক্রিকেটদুনিয়ার। আগামী ১৮ অক্টোবর থেকে আদৌ চলতি বছর টি২০ বিশ্বকাপ শুরু হবে কীনা, তা জানতে অপেক্ষা আরও বেশ কয়েকদিনের। আর বিশ্বকাপের সঙ্গে আইপিএলের ভাগ্য অনেকাংশে জড়িয়ে থাকায় ঝুলে রইল ভারতের মাটিতে ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ভবিষ্যতও। তবে এই সময়কালের মধ্যে আইসিসি ম্যানেজমেন্ট তার সদস্য দেশগুলোর সঙ্গে প্রতি মুহুর্তে করোনার জেরে পরিবর্তিত পরিস্থিতি সম্পর্কে খোঁজ খবর নেওয়া চালু রাখবে।

টেলিকনফারেন্সের মাধ্যমে সেই বৈঠকে BCCI-এর হয়ে প্রতিনিধিত্ব করেন বোর্ড সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলি। ম্যারাথন বৈঠকের পরও কোনও সিদ্ধান্তে পৌছতে পারেনি আইসিসি। এদিনের আলোচনায় সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ এজেন্ডা ছিল, করোনার জন্য চলতি বছরে অস্ট্রেলিয়াতে টি-20 বিশ্বকাপ হবে কিনা! বিভিন্ন সূত্র থেকে পাওয়া খবর অনুযায়ী, এই বছরের টি-20 বিশ্বকাপ হবে ২০২২ সালে। দুবছর পিছিয়ে দেওয়ার কারণ ২০২১ সালে ভারতে টি—২০ বিশ্বকাপ হবে। একই বছরে দুটো ইভেন্ট আয়োজন করা হলে সমস্যার কথা জানিয়েছে সম্প্রচারকারী সংস্থা। কারণ এতে তারা আর্থিক ক্ষতির মুখোমুখি হবে।

আইসিসির বার্তায় বলা হয়েছে, ‘‘বোর্ড সদস্যদের একজন এই বিষয়ে চিন্তার কথা জানান এবংং এই বিষয় নিয়ে দ্রুত কোনও পদক্ষেপ নেওয়ার আর্জি জানান কী ভাবে বোর্ডের গুরুত্বপূর্ণ বিষয় বাইরে চলে আসছে।”এমনকি আইসিসির এথিকস অফিসারকে তথ্য মিডিয়ায় বেরিয়ে যাওয়ার বিষয়ে তদন্ত করতে হবে। সেখানে আরও বলা হয়, ‘‘এখুনি এই নিয়ে তদন্ত শুরু করতে বলা হয়েছে এথিকস অফিসারকে যাঁকে সমর্থন করবে গ্লোবাল এক্সপার্টরা। বোর্ডের পরের মিটিং ১০ জুন ২০২০তে তদন্তের রিপোর্ট আইসিসির সিইও জানাবে।”

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: