Nation

বিষাক্ত গ্যাস থেকে বাঁচতে সমুদ্রতীরে ফুটপাতে রাত কাটাল মানুষ

গ্যাস লিক করে যাওয়াতে আতঙ্ক ছড়িয়েছে মানুষের মধ্যে, প্রাণ গিয়েছে ১১ জনের, অসুস্থ হাজার মানুষ

@ দেবশ্রী : দুদিন আগে বিশাখাপত্তনমে ঘটে যাওয়া ঘটনা খুবই দুঃখজনক। গেছে বহু প্রাণ। নিজেদের প্রাণ বাঁচাতেই, রামকৃষ্ণ বিচের গা ধরে যে রাস্তা গেছে, সেই রাস্তার ফুটপাতেই রাত কাটালেন বিশাখাপত্তনমের বহু মানুষ। এলজি পলিমার্স-‌এর কারখানার গ্যাস লিকের জেরেই ঘর ছেড়ে পথে নামতে হল মানুষকে। সাবধানতার কারণে কারখানার ২‌ কিলোমিটার ব্যাসার্ধের মধ্যে থাকা সব বাড়ি ফাঁকা করতে হয় পুলিশের নির্দেশে।

তবে এই আতঙ্ক ২ কিলোমিটারের মধ্যে আটকে থাকেনি। আরও দূরে থাকা মানুষজন, প্রায় ১০ কিমি এলাকা জুড়ে অনেক মানুষ বেরিয়ে এসেছিলেন ঘর ছেড়ে। শহরের পুলিশ কমিশনার আর কে মিনার আবেদন করেন, আতঙ্কের কারণ নেই। কিন্তু, আতঙ্ক থেকে বেরিয়ে আসা কঠিন। এরপর শুক্রবার আতঙ্ক ছড়ায়, নতুন করে আবার গ্যাস লিক করেছে। কারখানা এলাকায় ধোঁয়ার মতো গ্যাস বেরোতে দেখেই ছড়িয়ে পড়ে ‘‌খবর’‌। কিন্তু সরকারিভাবে তা অস্বীকার করা হয়। জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী (‌এনডিআরএফ)‌-‌এর ডিরেক্টর জেনারেল এস এন প্রধান জানান, এটা একেবারেই ভুয়ো খবর। ফুটো বন্ধ করার কাজ চলছে। তাতেই ধোঁয়া বেরোতে দেখা গেছে। এটা একেবারেই টেকনিক্যাল বিষয়।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক থেকেও বিবৃতি দিয়ে জানানো হয়, নতুন করে গ্যাস লিক করার খবর নেই। গ্যাস লিকের ব্যাপারটি নিয়ন্ত্রণ করার কাজ চলছে। এটা ‘‌সামান্য টেকনিক্যাল লিক’‌।

লকডাউনে টানা বন্ধ থাকার পর খুলেছিল এল জি পলিমার্সের কারখানা। বুধবার শেষ রাতে ঘটে গ্যাস লিকের ঘটনাটি, বিরাট বিপর্যয় নিয়ে আসে সেই বিষাক্ত স্টাইরিন গ্যাস। কেন্দ্রীয় সরকারের তথ্য অনুযায়ী প্রাণ হারিযেছেন ১১ জন, অসুস্থ হয়ে পড়েন ১ হাজার মানুষ। ভোপাল গ্যাস বিপর্যয়ের স্মৃতি জাগিয়ে দিয়েছে এই ঘটনা।

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: