Big Story

‘‘যদি বদলা নিতে না পারি , বিষ খেয়ে মৃত্যুবরণ করব “: মদন @ নৈহাটি

নৈহাটিতে অন্য জেলা থেকে লোক এনে জনপ্লাবন :মমতা এলেন ধর্ণা মঞ্চে

নৈহাটিতে অন্য জেলা থেকে লোক এনে জনপ্লাবন , মমতা এলেন ধর্ণা মঞ্চে। জেলার নেতারা মার্ খেয়ে কোনঠাসা , তারপর ২৯ জন কাউন্সিলররা যোগ দিয়েছেন বিজেপিতে , প্রায় এক ঘরে হয়ে যাচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেস। উপস্থিত লোকসভায় পরাজিত দীনেশ ত্রিবেদী থেকে জেলার সকল নেতারা। গত কাল থেকেই চাপে ছিল জেলার নেতারা

গলা বুজে এল পার্থ ভৌমিক বললেন ‘ ক্ষমা চাইছি, আপনাদের মনে রাখতে পারেননি আমাদের দলের নেতারা ‘ জোর করে দলবদল করাচ্ছে বিজেপি এই অভিযোগে . নৈহাটিতে অবস্থান-বিক্ষোভে বসেছে তৃণমূল। ‘সত্যাগ্রহ’ নাম এই কর্মসূচী তিনি পৌঁছনোর আগেই ওই সত্যাগ্রহ মঞ্চে পৌঁছে যান তৃণমূলের একাধিক নেতা। আর সেই মঞ্চ থেকেই বৃহস্পতিবার দুপুরে ক্ষমা চাইতে শোনা গেল নৈহাটির বিধায়ক তথা জেলার দাপুটে নেতা পার্থ ভৌমিককে। দলের জন্মলগ্নের সময়কার তৃণমূল কর্মীদের মূল্যায়ন যে দলীয় নেতারা করতে পারেননি, অকপট স্বীকার করলেন জন সমক্ষে।

কানা ঘুষ সোনা যাচ্ছে অভিষেকের কথা তৃণমূল যুবর অত্যাচারের কথা , পুরানো নেতারা কিভাবে অপমানিত হয়েছেন অভিষেকের দলবলের কাছে। পুলিশও অনেক সময় দলের নেতাদের বিপক্ষে খারাপ ব্যবহার করতে ছাড়েন নি। দিদি আর কি করবে কত বলা হয়েছে এখন সেসর সময়ে এসে হরি নাম করলে আর কি হবে , বললেন এক প্রবিক তৃণমূল কর্মী সামনে দাঁড়িয়ে দীনেশ ত্রিবেদী – এক বার তাকিয়ে সরে গেলেন।

আশার কথা ছিল দুপুর ১টা নাগাদ পৌঁছনোর কথা থাকলেও মমতা ঢোকেন বিকাল পাঁচটা নাগাদ। তৃণমূল কর্মী, সমর্থক এবং রাজ্য ও জেলাস্তরের নেতাদের নেতৃত্বে অবস্থান ছিলেন । রাজ্যের মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক, নৈহাটির বিধায়ক পার্থ ভৌমিক, জেলা তৃণমূলের কার্যকরী সভাপতি নারায়ণ গোস্বামী, পানিহাটির বিধায়ক তথা জেলা তৃণমূলের পর্যবেক্ষক নির্মল ঘোষ, নোয়াপাড়ার সুনীল সিংহ, প্রাক্তন মন্ত্রী মদন মিত্র-সহ আরও অনেকে। মদন মিত্র এ দিন ব্যারাকপুরের সদ্য নির্বাচিত সাংসদ অর্জুন সিংহকে আক্রমণ করতে গিয়ে বলেন, ‘‘যদি বদলা নিতে না পারি , বিষ খেয়ে মৃত্যুবরণ করব। কিন্তু, দাঙ্গাবাজদের কাছে আত্মসমর্পণ করব না।’’

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: