Big Story

তৃণমূল বিপদে : রাজীব কুমারকে নোটিস, আগামিকাল সকাল ১০টায় তলব করল CBI, হতে পারেন গ্রেপ্তার !

ভোটের জন্য পিছিয়ে ছিল , বিপদে তৃণমূল

প্রাক্তন পুলিস কমিশনার রাজীব কুমারকে তলব করল সিবিআই, আগামী কাল সকাল ১০ টায় যেতে হবে সিজিও কমপ্লেক্সে। চলবে জিজ্ঞাসাবাদ , জিজ্ঞাসাবাদে খুশি না হলে গ্রেফতার করতে পারে সিবিআই , চলে আস্তে পারে অনেক তথ্য যা অনেকের অজানা। ঝুলি থেকে সাপ বেরিয়ে পড়ার সম্ভাবনা , আতঙ্কে তৃণমূল শিবির।
রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে সারদা কাণ্ডের তথ্যপ্রমাণ নষ্টের অভিযোগ রয়েছে। এ নিয়ে রবিবার সন্ধ্যায় রাজীব কুমারের বাড়িতে নোটিস দেওয়া হয়েছে সিবিআই-এর তরফে।
এদিন সন্ধ্যায় সিবিআই-এর একটি চার সদস্যের দল প্রথমে পৌঁছায় কলকাতার লাউডন স্ট্রিটে কলকাতার পুলিস কমিশনারের বাসভবনে কিন্তু সেখান থেকে জানানো হয় ওই বাড়িতে এখন আর রাজীব কুমার থাকেন না। সেখানে এখন কলকাতার বর্তমান পুলিস কমিশনার থাকেন।
এরপর পর সেখান থেকে সিবিআই-এর দল চলে যায় পার্কস্ট্রিটের পুলিস কোয়ার্টারে, সেখানেই থাকেন রাজীব কুমার। সেখানেই রাজীব কুমারকে তলবের নোটিস ধরানো হয় সিবিআইয়ের তরফে। তার পর সিবিআইয়ের ওই দল সেখান থেকে ফিরে যায় সিজিও কমপ্লেক্সে ।

বিশেষ সূত্রে জানা যায় সিবিআই রবিবার দিনভর রাজীব কুমারের সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হয়। বারবার ফোন করা হয় রাজীব কুমারকে। কিন্তু তিনি ফোন ধরেননি। ফলে রবিবার সন্ধ্যায় রাজীব কুমারের বাড়িতেই হাজির হয় কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার ওই দল।
রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে সারদা কাণ্ডের তথ্যপ্রমাণ নষ্টের অভিযোগ রয়েছে। এর আগে গত ফেব্রুয়ারি মাসে রাজীব কুমারের বাসভবনে যায় সিবিআই। তখন তিনি কলকাতার পুলিস কমিশনার। ফলে এ নিয়ে ব্যাপক গোলমাল হয়।এবার অনেক সাবধানী সিবিআই , আটঘাট বেঁধে নেমেছে।

সিবিআই রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে তদন্তে অসহযোগিতার অভিযোগ তোলে বারংবার । হেফাজতে নিয়ে জেরার করার আর্জি জানানো হয় শীর্ষ আদালতে। সম্প্রতি সুপ্রিম কোর্ট রাজীব কুমারের রক্ষাকবচ তুলে নেয়। আগাম জামিনের আর্জি খারিজ করে দেয়।

এখন চাইলেই সিবিআই রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে যে কোনও পদক্ষেপ করতে পারে। ইতিমধ্যে রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে লুক আউট নোটিস জারি করা হয়েছে। তার পরই এই পদক্ষেপ। তবে এদিন সিবিআই তদন্তকারীদের সঙ্গে রাজীব কুমারের দেখা হয়েছে কি না, তা স্পষ্ট নয়। সেই সময় রাজীব কুমার বাড়িতে ছিলেন কি না, তা জানা যায়নি।

পার্ক স্ট্রিটে আইপিএস কোয়ার্টার থেকে বেরিয়ে সিবিআই-এর দলটি চলে যায় ভবানী ভবনে। সেখানে সিআইডির সদর দফতর। রাজীব কুমারকে এদিনই সিআইডির শীর্ষপদে ফিরিয়েছে রাজ্য সরকার। সেকারণেই সিবিআইয়ের ওই দল সেখানে যায় বলে জানা গিয়েছে

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: