Big Story

রাজ্যে এক লাফে আক্রান্তের সংখ্যা ১০ থেকে বেড়ে হল ১৫

রাজ্যে করোনা আক্রান্ত এক পরিবারের ৫ জন

প্রেরনা দত্তঃ রাজ্যে এক লাফে আক্রান্তের সংখ্যা ১০ থেকে বেড়ে হল ১৫কলকাতা ও শহরতলি ছাড়িয়ে রাজ্যের প্রত্যন্ত এলাকাতেও ঢুকে পড়ল করোনা। নদিয়ার তেহট্টে এক যুবতীর সংস্পর্শে করোনা-সন্দেহভাজনের তালিকায় চলে এসেছিলেন ১৩ জন। রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতর জানিয়েছে, লন্ডন-যোগে ওই যুবতী-সহ পাঁচ জনের নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট শুক্রবার পজ়িটিভ এসেছে।দু’টি আক্রান্ত শিশুর বয়স যথাক্রমে ছ’ বছর এবং ন’ মাস। দু’টি শিশুই কন্যাসন্তান। আক্রান্ত কিশোরের বয়স ১১ বছর। বাকি দু’ জন ৪৫ বছর ও ২৭ বছরের। এঁরা দু’ জনেই মহিলা।

বৃহস্পতিবারই তাঁদের সকলের লালারস পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। শুক্রবার রিপোর্ট আসে। আট জনের নেগেটিভ, ৫ জনের পজিটিভ। জানা গিয়েছে, গত ১৬ মার্চ দিল্লিতে একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে গিয়েছিল নদিয়ার তেহট্টের এই পরিবারটি৷ সেখানেই ব্রিটেন থেকে আসা এক করোনা আক্রান্তের সংস্পর্শে আসে ওই পরিবারটি৷ এর পরই গৃহকর্তা দিল্লিতেই করোনায় আক্রান্ত হন৷ দিল্লিরই একটি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন গৃহকর্তা৷ পরিবারের বাকি সদস্যরা তেহট্টে ফেরার পর তাঁদের গৃহবন্দি অবস্থায় পর্যবেক্ষণে রাখা হয়৷কয়েকদিন আগে পরিবারের একটি শিশু প্রথম অসুস্থ হয়৷ এর পর ধীরে ধীরে বাকিরাও অসুস্থ হন৷ তাঁদের নমুনা দু’ বার পরীক্ষা করার পর করোনা সংক্রমণের ফল পজিটিভ আসে৷

স্বাস্থ্য আধিকারিকরা জানান, দিল্লিতে তাঁরা যে ইংল্যান্ড থেকে আসা এক ব্যক্তির সংস্পর্শে এসেছিলেন, সে কথা জানাননি।আইডি-র খবর, সেখানে চিকিৎসাধীন করোনা-আক্রান্ত আট জনের অবস্থা স্থিতিশীল। রাজ্যের দ্বিতীয় ভাইরাস-আক্রান্তের বাবার জ্বর আছে। ওষুধ দিয়ে জ্বর কমানো হয়েছে।এখনও পর্যন্ত ধীর গতিতে বাড়ছিল করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা। কিন্তু এদিন ৫ জন একসঙ্গে ধরা পড়ার পর করোনার শিকার এখন লাফ দিয়ে ১৫ জনে পৌঁছে গেল। মৃত্যু হয়েছে এখনও পর্যন্ত ১ জনের।

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: