Health

রাজ্যে ‘স্বস্তি’ বাড়িয়ে বাড়লো করোনা স্পেশাল হাসপাতালের সংখ্যা

যাদবপুর কেপিসি মেডিক্যাল কলেজকে কোভিড স্পেশাল হাসপাতাল হিসেবে ঘোষণা করা হলো

পল্লবী : যাদবপুর কেপিসি মেডিক্যাল কলেজকে কোভিড স্পেশাল হাসপাতাল হিসেবে ঘোষণা করা হলো। ফলে করোনা মোকাবিলায় আরও একটি হাসপাতাল বাড়ল কলকাতায়। এই নিয়ে কলকাতায় মোট ৬টি হাসপাতালকে করোনা স্পেশাল করা হল। আর এই নিয়ে রাজ্যে কোভিড স্পেশাল হাসপাতালের সংখ্যা দাঁড়াল মোট ৬৯ টি। কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালের পর এই হাসপাতালকে কোভিড হাসপাতাল হিসেবে ঘোষণা করল মমতা সরকার।শহরের তৃতীয় বেসরকারি হাসপাতাল হিসেবে করোনা রোগীদের পরিষেবা দেবে কেপিসি মেডিক্যাল কলেজ। সোমবার রাজ্য সরকারের এই সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এই হাসপাতালের ২০৬ বেডের একটি পাঁচতলা ব্লক করোনা রোগীদের জন্য নির্দিষ্ট করা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে ১৩টি আইসিইউ বেড। কেপিসি মেডিক্যাল কলেজে মোট ৭৫০টি বেড রয়েছে। এর আগে কলকাতা মেডিকেল কলেজ যখন কোবিড ১৯ হাসপাতাল হিসেবে ঘোষিত হয় তখন টুইট করে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছিলেন , ‘রাজ্যে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ক্রমবর্ধমান। তাই দ্রুত পরীক্ষা ও চিকিত্‍সার জন্য আমরা কলকাতা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালকে একটি পূর্ণাঙ্গ কোভিড হাসপাতাল হিসাবে গড়ে তোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। মুখ্যমন্ত্রী আরও জানিয়েছেন, ‘কলকাতার মেডিকেল কলেজে প্রাথমিকভাবে ৫০০ বেড নিয়ে শুরু হবে। পরে ধাপে ধাপে প্রয়োজন অনুযায়ী বেড বাড়ানো হবে। রাজ্যে এটা নিয়ে মোট ৬৮টি করোনা হাসপাতাল তৈরি হল’।

রাজ্যে মোট ৬৯টি করোনা হাসপাতাল তৈরি করা হয়েছে। এর মধ্যে থেকে ৫টি হাসপাতাল বেছে নিয়ে প্রত্যেকটি হাসপাতালের জন্য আলাদা আলাদা কমিটি তৈরি করা হয়েছে। এই করোনা হাসপাতালগুলো হল, এমআর বাঙুর হাসপাতাল, বেলেঘাটা আইডি হাসপাতাল, নিউটাউনে চিত্তরঞ্জন ক্যানসার হাসপাতাল, সল্টলেকের AMRI হাসপাতাল ও কলকাতা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল। এই পরিস্থিতিতে যে গতি তে সংক্রমণ বেড়েই চলেছে তাতে পরিষেবা ব্যবস্থা বাড়ানো অতীব জরুরি একটি বিষয়। তাই মুখ্যমন্ত্রীর আরো এক হাসপাতাল কে করোনা স্পেশাল হাসপাতাল হিসেবে ঘোষণা করায় কিছুটা স্বস্তি আসতে পারে পরিস্থিতি মোকাবিলায়।

Show More

Related Articles

Back to top button
%d bloggers like this: