Nation

হাসপাতালে আগুন লেগে মৃত্যু ১০ সদ্যজাত শিশুর, হাসপাতাল সুরক্ষা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন

মাত্রাতিরিক্ত ধোঁয়াতে দমবন্ধ ১০ শিশুর, শর্ট সার্কিটে আগুন লেগেছে বলেই অনুমান

দেবশ্রী কয়াল : মধ্যরাতে ঘটে গেল ভয়াবহ দুর্ঘটনা। হাসপাতলে আগুন লাগার কারনে প্রাণ হারায় ১০জন সদ্যজাত। ঘটনাটি ঘটে, গতকাল শুক্রবার রাত ২টোর সময়। মহারাষ্ট্রের (Maharastra) ভাণ্ডারা জেলার একটি হাসপাতালে নবজাতক কেয়ার ইউনিটে (Sick Newborn Care Unit)। এই ঘটনাতে আগুন লেগে মৃত্যু হয় ১০ জন সদ্যজাত শিশুর। জানা যাচ্ছে ওই নবজাতক কেয়ার ইউনিটে ভর্তি ছিল ১৭জন শিশু। আর সেখান হটাৎ ধোঁয়া বের হতে দেখেন নার্সরা। তৎক্ষণাৎ খবর দেওয়া হয় দমকল বাহিনীকে। তবে ৭ জন শিশুকে উদ্ধার করা সম্ভব হলেও, অতিরিক্ত ধোঁয়ার কারনে দমবন্ধ হয়ে মারা যায় কেয়ার ইউনিটের বাকি ১০ জন শিশু।

ওই হাসপাতল সূত্রে খবর মিলছে, মৃত শিশুদের বয়স এক থেকে ৩ মাসের মধ্যে। গতকালের এই ঘটনায় স্বাভাবিক ভাবেই তীব্র আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে হাসপাতালে। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে সদ্যজাত কেয়ার ইউনিটে কীভাবে হটাৎ করে আগুন লেগে যায়। ঘটনায় ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে তদন্ত। তদন্তে নেমে পুলিসের প্রাথমিক অনুমান, সম্ভাবত শর্ট সার্কিট থেকেই হয়ত আগুন লেগেছে। আর এই ঘটনার পর থেকেই হাসপাতালের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন।

ইতিমধ্যে মৃত শিশুদের অভিভাবকদের সমস্ত ঘটনা জানানো হয়েছে। যে সাত শিশুকে উদ্ধার করা হয়েছে, তাদের এখন অন্য একটি ওয়ার্ডে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। যদিও তাঁদের শরীরেও আগুনের আঁচ লেগেছে বলেই জানা যাচ্ছে। ওই হাসপাতালের আইসিইউ ওয়ার্ড, ডায়ালিসিস উইং এবং লেবার ওয়ার্ডের রোগীদেরও অন্যত্র সরিয়ে দেওয়া হয় দ্রুত। ইতিমধ্যেই এই ঘটনায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী রাজেশ তোপে এবং ভান্ডারা জেলা কালেক্টের ও SPর সঙ্গে এ নিয়ে আলোচনা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে। গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখার নির্দেশও দিয়েছেন তিনি।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: