Culture

জেলার আসরে উমা স্মরণ : যোধপুর পার্ক শারদীয়া

শহর পরিক্রমায় দূর্গাগাড়ি ! আর কি নতুন চমক থাকছে এ বছর?

মধুরিমা সেনগুপ্ত: হস্তশিল্পের প্রসার কমছে, বাড়ছে রেডিমেড পণ্যসামগ্রীর চাহিদা। এমতাবস্থায় সেই হস্তশিল্পকে প্রচারে আনতে ছয়টি জেলার বিভিন্ন হস্তশিল্পজাত পণ্যসামগ্রীতে সেজে উঠছে এবারের যোধপুর পার্কের মন্ডপ। ৬৮ বছরের এই পুজোর এবছরের থিম ‘জেলার আসর’। বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, পশ্চিম মেদিনীপুর, দক্ষিণ ২৪ পরগনা, মালদা, মুর্শিদাবাদ এই ছয়টি জেলার হস্তশিল্পকে কেন্দ্র করে সেজে উঠছে মন্ডপ।

এই বছরের পূজায় মূল ভাবনায় আছেন বাপাই সেন এবং প্রতিমাশিল্পী হলেন বাপি দাস। এছাড়াও রয়েছে দুর্গাগাড়ি যা শহর পরিক্রমা করবে। ক্লাবের জেনারেল সেক্রেটারি সুমন্ত রায়ের সাথে কথা বলে আমরা জানতে পেরেছি এই পরিস্থিতিতে পুজোর সময় সংক্রমণ রুখতে তারা এমনভাবে মন্ডপ তৈরী করেছেন যাতে দর্শণার্থীদের মন্ডপের ভিতরে ঢুকতেই হবেনা। ফলে কমবে সংক্রমণের ঝুঁকিও।

এছাড়াও গাড়ি করে যেতে যেতেও মায়ের দেখা মিলবে LED স্ক্রিনের মাধ্যমে। ক্লাবের নিজস্ব ওয়েবসাইটে পুরো পুজোটাই সরাসরি সম্প্রচারিত হবে। ছয়টি জেলার বিভিন্ন কারিগর এসে কাজ করছেন তাই তাদের সুরক্ষার একটা প্রশ্ন থেকেই যায়। কিন্তু সুমন্তবাবু বলেন তাদের সুরক্ষার ব্যবস্থাও করেছে ক্লাব কর্তৃপক্ষ। পুরো মন্ডপকে তিনটি জোনে ভাগ করে কাজ করা হচ্ছে এবং এক জোনের লোকের অন্য জোনে প্রবেশ নিষেধ। নির্দিষ্ট জোনে মানা হচ্ছে সামাজিক দূরত্ব, বারবার চলছে মাস্ক ও স্যানিটাইজারের ব্যবহার। অর্থাৎ বোঝাই যাচ্ছে বেশ সাবধানতার সাথেই সম্পন্ন হতে চলেছে এবারের যোধপুর পার্কের পুজো।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: