West Bengal

এবার এম্বুলেন্স পরিষেবা এবং ভাড়ার বিষয়ে হস্তক্ষেপ করলো সুপ্রিম কোর্ট

শুক্রবার শীর্ষ আদালত জানিয়ে দিয়েছে নোভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত কোনও রোগিকে নিয়ে যেতে গেলে অতিরিক্ত ভাড়া চাওয়া যাবে না।

পল্লবী কুন্ডু : করোনা আবহে প্রত্যেক পদক্ষেপে বিপদে পড়তে হয়েছে রোগীদের। হাসপাতাল থেকে শুরু করে এম্বুলেন্স পরিষেবা সর্ব ক্ষেত্রেই। তাই এবার সংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে আলোকপাত করলো সুপ্রিমকোর্ট। কোনো রোগীর এম্বুলেন্স লাগলে তাদের থেকে মাত্রাতিরিক্ত ভাড়া চায় গাড়ি গুলি এই অভিযোগ দীর্ঘদিনের। এবার এই বিষয়ে হস্তক্ষেপ করলো সুপ্রিম কোর্ট। শুক্রবার শীর্ষ আদালত জানিয়ে দিয়েছে নোভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত কোনও রোগিকে নিয়ে যেতে গেলে অতিরিক্ত ভাড়া চাওয়া যাবে না। এজন্য রাজ্যগুলিকে সম্মিলিত ভাবে একটি নির্দিষ্ট ভাড়া তৈরি করতে হবে।

সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছে অ্যাম্বুলেন্স পরিষেবা নিয়ে প্রচুর অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে, যা একেবারেই কাম্য নয়। তাই রাজ্যগুলিকে এর নির্দিষ্ট ভাড়া রাখতে হবে ও নজরদারি চালাতে হবে, যাতে রোগির পরিবারকে সমস্যায় পড়তে না হয়। এই বিষয়ে শুক্রবার উদ্বেগ প্রকাশ করেছে সুপ্রিম কোর্ট। এদিন আদালত জানিয়েছে এক এক বার এক এক রকম ভাড়া নেওয়া হচ্ছে। মনমতো ভাড়া না পেলে রোগি ফেলে চলে যাওয়া হচ্ছে। এই ইস্যুতে কড়া ব্যবস্থা নিক রাজ্যগুলি। রাজ্যের নির্দিষ্ট করা ভাড়ার বেশি নেওয়া হলেই শাস্তির মুখে পড়তে হবে অ্যাম্বুলেন্স সংস্থাগুলিকে।এক জনস্বার্থ মামলার শুনানির প্রেক্ষিতেই শুক্রবার এই রায় দেয় দেশের শীর্ষ আদালত।

শুক্রবার সুপ্রিম কোর্ট আরও জানিয়েছে করোনা রোগিদের জন্য আলাদা অ্যাম্বুলেন্সের ব্যবস্থা করা উচিত। রোগি বিশেষ অ্যাম্বুলেন্স দেওয়া হবে, তাতে ভেন্টিলেটর থাকবে অথবা প্রয়োজন না হলে থাকবে না। শীর্ষ আদালতের পর্যবেক্ষণ কখনও ৭০০০ টাকা কখনও আবার ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত চাওয়া হচ্ছে। এই অরাজকতা বন্ধ করা দরকার।রাজ্যের বিভিন্ন জায়গা থেকে অভিযোগ আশায় এবার নড়ে চড়ে বসেছে সুপ্রিম কোর্ট।

Tags
Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close
Close
%d bloggers like this: