Nation

বিক্ষোভের পথ থেকে অনড় কৃষক সমাজ, আগামী ১৪ ই ডিসেম্বর ফের দেশজুড়ে ধর্মঘটের ডাক

কেন্দ্রের কথায় মত বদল করতে নারাজ কৃষক সংগঠন

পল্লবী কুন্ডু : নিজেদের সিদ্ধান্তে অনড় বিক্ষোভকারী কৃষকরা(Protesting farmers), কেন্দ্রের কথায় মত বদল করতে নারাজ তারা। ইতিমধ্যেই কেন্দ্র এবং কৃষক সংগঠন এর মধ্যে দফায় দফায় বৈঠক হয়েছে বেশকিছু বার। লাভের লাভ হয়নি কিছুই। বৈঠকের পরেও কৃষকরা কৃষি আইনের বিরুদ্ধে। গতকাল মঙ্গলবার ফের যখন কৃষক সংগঠন এবং কেন্দ্রের মধ্যে বৈঠক হয়, তখন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানিয়ে দেয় কৃষক আইনের বদল না ঘটানোর। কিন্তু বুধবার বারোটার সময় কৃষক সংগঠনের বৈঠকের সিদ্ধান্ত হয় কোন রকম সংশোধন নয়, একমাত্র কৃষক আইন বদল না করলে চলতে থাকবে কৃষক আন্দোলন। এই সিদ্ধান্তের পরেই কৃষকদের নতুন কর্মসূচি, গত বুধবার সরকারের সংশোধনী প্রস্তাব বাতিল করার পরেই, তারা আলাদা কর্মসূচি গ্রহণ করে।

অন্যদিকে, ষষ্ঠ দফায় বৈঠক গতকাল বুধবার হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তার আগেই স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত সহ মঙ্গলবার বৈঠক ডাকে। আর সেখানেই তিনি স্পষ্ট করে দেয় আইন বাতিল করা হবে না, আর এই আইন বাতিল কোনভাবেই সমাধান নয়। তিনি জানান বুধবার কৃষক সংগঠন এর কাছে কয়েকটি প্রস্তাব পাঠানো হবে আর সেটা দেখে সিদ্ধান্ত নেবে কৃষক সংগঠন। এই কথা বলার পর এইসব সংগঠন স্পষ্ট বুঝে যায় সরকারের বার্তা। যার ফলে এই সংগঠন জানায় আর কোনো বৈঠক নয়, আলোচনা এখানেই শেষ। তারপরেই নিজেদের মধ্যে বৈঠক করে কেন্দ্রের সাথে বৈঠকের বাতিল ঘোষণা করে।

এদিকে বুধবার সরকারের সংশোধনী প্রস্তাব বাতিল করার পরেই আলাদা কর্মসূচি হিসেবে আগামী ১৪ ই ডিসেম্বর দেশজুড়ে ধর্মঘটের ডাক দেয় তারা ও তার আগে ১২ ডিসেম্বর দিল্লি জয়পুর হাইরোড অবরোধের সিদ্ধান্ত নেয় তারা। ইতিমধ্যে কৃষক সংগঠন এবং কেন্দ্রের মধ্যে ষষ্ঠ দফায় বৈঠক হয়েছে। এরমধ্যে পঞ্চম দফায় কৃষক সংগঠন কেন্দ্রের কাছে জানতে চেয়েছিল আইন বাতিল করা হবে কিনা? কিন্তু সেখানে কেন্দ্রীয় কৃষিমন্ত্রী দুটি প্রস্তাবে সাড়া দিলেও, তারপরে কৃষক সংগঠনের পক্ষ থেকে তারা পুরোপুরি চুপ থাকে। স্বাভাবিকভাবেই কথা আর এগোয় না।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: