West Bengal

মা করোনা আক্রান্ত, সদ্যোজাতকে হাসপাতালে রেখে গেলেন পালিয়ে

আশঙ্কা যদি মেয়েরও হয়ে যায় করোনা, তবে শিশু এখন করোনা নেগেটিভ

দেবশ্রী কয়াল : ঘটে গেল এক অদ্ভুত ঘটনা। ৪ দিনের সদ্যজাত শিশুকে হাসপাতালে রেখেই পালিয়ে গেল মা। কারন মা, করোনা পজিটিভ। আর তাঁর থেকেই শিশুর করোনা হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে প্রবল। এদিন ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই, চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে মালদা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে। এই মুহূর্তে সদ্যজাত শিশুর করোনা নেগেটিভ। তাঁকে রাখা হয়েছে, মাতৃমা বিভাগের এসএনসিইউ-‌এ। জানা যাচ্ছে, এসএনসিইউ থেকে পরে বার করে সদ্যজাত শিশুরও করোনা পরীক্ষা করানো হবে।

ঘটনার বিশদে গেলে জানা যায়, মায়ের বাড়ি ভূতনি থানা এলাকায়। গত সপ্তাহেই প্রসব যন্ত্রণা নিয়ে তিনি মালাদ মেডিক্যালের মাতৃমা বিভাগে ভর্তি হন। ৪ দিন আগে এক কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। নিয়মানুসারে প্রসূতি থাকা অবস্থায় মায়ের করোনা পরীক্ষা করা হয়। এদিকে সন্তান জন্ম দেওয়ার পর তিনি জানতে পারেন যে তিনি করোনা পজিটিভ। আর এই অবস্থাতেই সদ্যজাত শিশুকে এসএনসিইউ-‌র নিকু বিভাগের ৬ নম্বর শয্যায় রেখে তার চিকিত্‍সা চলতে থাকে।

এমন সময় সদ্যজাতের মধ্যে করোনা ছড়িয়ে পড়তে পারে বলে আশঙ্কায় প্রসূতি বিভাগ থেকে নিখোঁজ হয়ে যান মা। তারপর খোঁজাখুঁজি করেও মায়ের কোনও খবর পাওয়া যায় না। এদিকে মা নিখোঁজ, এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই চারিদিকে ছড়িয়ে পরে চাঞ্চল্যতা। কিন্তু তার কিছুক্ষন পর, মালদা মেডিক্যাল কলেজ কর্তৃপক্ষের কাছে আসে ফোন। সেই ফোন করেন মা নিজের বাড়ি গিয়ে। ফোনেই তিনি তাঁর পালিয়ে যাওয়ার ঘটনাটি জানান এবং তার সাথেই জানান তাঁর করোনা পজিটিভের কথা।

জানা যাচ্ছে, সদ্যোজাতের মধ্যে করোনা ছড়িয়ে পড়বে সেই ভয়ে এবং তাঁকে কোভিড হাসপাতালে পাঠানো হতে পারে সেই আশঙ্কা থেকেই হাসপাতাল থেকে পালিয়ে গেছিলেন মা ওই পরিস্থিতিতে। তবে এই মুহূর্তে সদ্যজাতকে এসএনসিইউ-‌এ রাখা হয়েছে। সেখান থেকে বার করার পর ওই শিশুর করোনা পরীক্ষা করা হবে, বলে মিলছে খবর। তারপর পরিবারের হাতে তাঁকে তুলে দেওয়া হবে। তবে মা কিন্তু রয়েছেন সম্পূর্ণ হোম কোয়ারেন্টাইনে।

Tags
Show More

Related Articles

Back to top button
Close
Close
%d bloggers like this: