Health

তবে কি নতুন বছরে আরো প্রকট নয়া স্ট্রেন ? চিন্তায় চিকিৎসা মহল

বার নতুন বছরে সেই নয়া প্রজাতি পৌঁছলো চিনে, ব্রিটেন থেকে ফিরে আসা ২৩ বছরের এক মহিলার দেহে মিলল করোনার এক সংক্রমণ

পল্লবী কুন্ডু : ক্রমশ চিন্তা বাড়াচ্ছে করোনার নতুন স্ট্রেন(New strain)। এবার নতুন বছরে সেই নয়া প্রজাতি পৌঁছলো চিনে(China)। ব্রিটেন থেকে ফিরে আসা ২৩ বছরের এক মহিলার দেহে মিলল করোনার এক সংক্রমণ। করোনা ভাইরাসের এই নয়া স্ট্রেন প্রথমে ব্রিটেন থেকে সামনে এসেছিল। এরপরে ইউরোপ সহ বিশ্বের অন্য প্রান্তেও ছড়িয়ে পড়ে এই ভাইরাস।

চিনে যে মহিলার দেহে নতুন স্ট্রেন মিলেছে, তিনি ব্রিটেন থেকে এসেছেন। ১৪ ডিসেম্বর সাংহাইতে তাঁর টেস্ট হয়েছিল। এরপরে রিপোর্টে নতুন স্ট্রেন ধরা পড়ার পরে তাঁকে আলাদা আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। কোন কোন ব্যক্তিরা তাঁর সংস্পর্শে এসেছিল তা এখন খতিয়ে দেখা হচ্ছে।করোনা ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন সামনে আসার পর বিশ্বজুড়ে আতঙ্কের সৃষ্টি হয়। বিজ্ঞানীরা দাবি করেছেন, ভাইরাসের এই স্ট্রেনটি মূল ভাইরাসের চেয়ে অনেক বেশি সংক্রামক।

তবে বিপদ এড়াতে ইতিমধ্যেই বেশ কয়েকটি দেশ ট্র্যাফিক বন্ধ করে দিচ্ছে। কোথাও আবার লকডাউন ঘোষণা করা হচ্ছে। বিশেষজ্ঞদের মতে, সম্ভবত নতুন স্ট্রেনের জেরেই এই দেশ করোনার দ্বিতীয় ধাক্কার মুখোমুখি হচ্ছে। বলা হচ্ছে, করোনা ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন আগের ভাইরাসের চেয়ে ৭০ শতাংশ দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে।করোনা ভাইরাসের নতুন যে রূপ সেগুলিকেই বৈজ্ঞানিক ভাষায় স্ট্রেন বলা হচ্ছে। ব্রিটেন থেকে সুইডেন, ফ্রান্স, স্পেন, জার্মানি, জাপান সহ একাধিক দেশে ছড়িয়ে পড়ে এই স্টেন।

তবে সতর্কতার কোনো বিকল্প হয়না। তাই এই স্ট্রেন রুখতে নিজেদের সতর্ক থাকতে হবে পাশাপাশি সতর্ক রাখতে হবে আশেপাশের মানুষজনকেও। অন্যদিকে করোনা সংক্রমণ বিশ্বের শেষ মহামারী নয় বলে জানিয়েছেন হু প্রধান। তাই হু-য়ের সতর্কবার্তায় সাবধান হতে হবে।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: