Nation

কৃষক বিক্ষোভ নিয়ে অহেতুক উত্তেজনা সৃষ্টি করবেন না: বিদেশমন্ত্রকের কড়া বার্তা তারকাদের

অহেতুক উত্তেজনা ছড়াতে ব্যারন করা হচ্ছে বিদেশমন্ত্রক থেকে

মধুরিমা সেনগুপ্ত: পরিবেশপ্রেমী গ্রেট থার্নবার্গ থেকে পপ তারকা রেহানা- প্রত্যেকে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে সমর্থন জানিয়েছে কৃষি আন্দোলনকে। তাঁদের সাথে রয়েছেন ব্রিটেন ও আমেরিকার আইনসভার কয়েকজন সদস্যও। বুধবার তাঁদের বিরুদ্ধে কড়া বার্তা দিলো মোদী সরকার। তাদের বিরুদ্ধে সরকারের অভিযোগ, কৃষক বিক্ষোভ নিয়ে অহেতুক উত্তেজনা সৃষ্টির জন্য সোশ্যাল মিডিয়ায় নানারকম আপত্তিকর হ্যাশট্যাগ দেওয়া হচ্ছে। একটা কথা মনে রাখা দরকার, দেশের কৃষকদের খুব সামান্য অংশই এই আন্দোলনে শামিল হয়েছেন।

বিদেশমন্ত্রক এদিন বিবৃতি দিয়েছেন, ‘আমরা জোর দিয়ে বলতে চাই, কৃষকদের আন্দোলনকে ভারতের অভ্যন্তরীণ ব্যাপার হিসাবেই দেখা উচিত। সরকার চেষ্টা করছে যাতে সংশ্লিষ্ট কৃষকদের সঙ্গে কথা বলে সমস্যার সমাধান করা যায়।’ বিদেশী তারকা, যারা কৃষক বিদ্রোহকে সমর্থন জানিয়ে টুইট করেছেন তাদের উদ্দেশ্যে সরকারের বার্তা, ‘এসব ব্যাপারে তাড়াহুড়ো করে কোনও মন্তব্য করা উচিত নয়। কী হচ্ছে, তা ভাল করে বোঝা উচিত। সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন হ্যাশট্যাগ দেওয়া উচিত নয় যা উত্তেজনা সৃষ্টি করতে পারে। সেলিব্রিটিদের আরও দায়িত্বপূর্ণ আচরণ করা উচিত।’

এ বিষয়ে বিদেশমন্ত্রকের বক্তব্য কায়েমি স্বার্থবাহী কিছু কিছু গোষ্ঠী কৃষক আন্দোলনের ওপরে নিজেদের কর্মসূচি চাপিয়ে দিয়ে আন্দোলনকে বিপথগামী করতে চায়। আর এই ‘কায়েমি স্বার্থবাহী গোষ্ঠী’ই বিদেশে কৃষক আন্দোলনের পক্ষে প্রচার চালিয়ে যাচ্ছে বলে সরকারের দাবি। বিদেশমন্ত্রকের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘কায়েমি স্বার্থবাহী কেউ কেউ বিদেশে ভারতের বিরুদ্ধে প্রচার চালাচ্ছে। তাদের উস্কানিতেই বিদেশে মহাত্মা গান্ধীর মূর্তির অসম্মান করা হয়েছে। ভারত তথা সারা বিশ্বে সভ্য সমাজের কাছে এই ঘটনা অত্যন্ত আপত্তিকর।’ এছাড়াও বিবৃতিতে বলা হয়েছে একটা কথা খেয়াল করা দরকার, পুলিশের শত শত নারী ও পুরুষ কর্মী আক্রান্ত হয়েছেন। কয়েকটি ক্ষেত্রে তাঁদের ছুরিও মারা হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: