Industry & Tread

অনলাইনে নিজেদের জায়গা আরো মজবুত করলো ই-কমার্স সংস্থা ‘ফ্লিপকার্ট’

ওয়ালমার্ট ইন্ডিয়া প্রাইভেট লিমিটেডের পাইকারি ব্যবসা কিনে নিল ই-কমার্স সংস্থা ফ্লিপকার্ট।

পল্লবী কুন্ডু : একেই করোনার ভয় তার ওপর দফায় দফায় আনলক এবং লকডাউন, সবকিছু মিলিয়ে মার্কেটে গিয়ে কেনা-কাটা করার নাম দশ হাত দূরে সকলে। তাই এই সময় একমাত্র ভরসা হল অনলাইন শপিং। সেটা যা কিছু হতে পারে মাসের বাজার থেকে শুরু করে স্যানিটাইজার,মাস্ক বা জামাকাপড় বলুন। আর তাই এবার আরো বেশি সংখ্যক মানুষের কাছে পৌঁছতে ফ্লিপকার্ট এগিয়ে গেলো আরো একধাপ। ওয়ালমার্ট ইন্ডিয়া প্রাইভেট লিমিটেডের পাইকারি ব্যবসা কিনে নিল ই-কমার্স সংস্থা ফ্লিপকার্ট। আর এর ফলে ফ্লিপকার্টকে খাদ্য ও মুদিখানা বিভাগে ব্যবসা বাড়াতে এবং তার সাপ্লাই চেইনকে আরও শক্তিশালী করতে সাহায্য করবে।

ভারতে ওয়ালমার্ট ইন্ডিয়ার ২৮টি বেস্ট প্রাইস স্টোর এবং ২টি বিজনেস সেন্টার আছে। ফ্লিপকার্ট বলেছে যে এই অধিগ্রহণ প্রযুক্তির উন্নয়নের মাধ্যমে রিটেল বিজনেসের উন্নতি হবে। পাশপাশি স্থানীয় মুদিখানা এবং ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পের উন্নয়নে সাহায্য করবে। ওয়ালমার্ট ইন্ডিয়ার ১০০ শতাংশ শেয়ার তারা কিনে নিয়েছে। ওয়ালমার্ট ইন্ডিয়া ভারতে ক্যাস অ্যান্ড ক্যারি ব্যবসা পরিচালনা করত। ফ্লিপকার্ট নতুন একটি ডিজিটাল মার্কেটপ্লেস ফ্লিপকার্ট হোলসেল চালু করেছে।

জানা যাচ্ছে যে, ফ্লিপকার্ট হোলসেল অগাস্টে পরিষেবা দেওয়া শুরু করবে। মুদিখানা এবং ফ্যাশন বিভাগে পরিষেবা পাওয়া যাবে। ফ্লিপকার্ট হোলসেলের দায়িত্বে থাকছেন আদর্শ মেনন। ওয়ালমার্ট ইন্ডিয়ার সিইও সমীর আগরওয়াল থাকবেন কম্পানির হস্তান্তর প্রক্রিয়া যাতে সঠিক ভাবে হয় সেই বিষয়টি তিনি নিজে তদারকি করবেন। এর পরে তিনি ওয়ালমার্ট ইন্ডিয়ার অন্য পদে চলে যাবেন। ফ্লিপকার্ট জানিয়েছে তাদের নতুন এই প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে বেশিরভাগ অসংগঠিত মুদিখানা ব্যবসার ফাঁক পূরণ করতে পারবে। ছোটো দোকানগুলি সরাসরি এই প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে পণ্য অর্ডার করতে পারবে।

তাই আর চিন্তা নেই। এবার সুরক্ষিত থেকে সমস্ত বিধি নিষেধ মেনেই আপনার প্রয়োজনীয় পণ্য স্বয়ং আপনার বাড়ি এসে হাজির হবে।

Tags
Show More

Related Articles

Back to top button
Close
Close
%d bloggers like this: