Sports Opinion

ফের আলোচনার কেন্দ্রে স্মিথ, পন্থের ক্রিস মার্কস পা দিয়ে ঘোসে তোলার অভিযোগ স্মিথের বিরুদ্ধে

সিডনি টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে স্টিভ স্মিথ পা দিয়ে ঘষে পন্থের ক্রিস মার্কস তুলে দিয়েছিলেন, তাঁর সেই কাণ্ডের ভিডিয়ো রেকর্ড হয়েছিল স্টাম্প ক্যামেরায়

পল্লবী কুন্ডু : একজন খেলোয়াড় হয়ে টানা এক বছর মাঠের বাইরে থাকা মানে সেটা কতটা কঠিন তা জানেন স্মিথ। ফিরে আসার পরেও কম কিছু বঞ্চনার স্বীকার হতে হয়নি অজি খেলোয়াড় স্টিভ স্মিথ(Steve Smith)কে। তবে তার কাম ব্যাক অবিশ্বাস্য। নিজের দাপটে ক্রিসে টিকে থেকেছেন তিনি। বল বিকৃতি কাণ্ডের পর তিনি ক্রিকেটকে কলুষিত করার জন্য প্রকাশ্যে ক্ষমা চেয়েছিলেন। সাংবাদিক বৈঠকে এসে তিনি কান্নায় ভেঙে পড়েছিলেন। জানিয়েছিলেন, এমন ভুল তিনি আর করবেন না।

কিন্তু সেদিন দেওয়া কথা তিনি রাখতে পারলেন না। সিডনি টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে স্টিভ স্মিথ পা দিয়ে ঘষে পন্থে(Rishabh Panth)র ক্রিস মার্কস তুলে দিয়েছিলেন। তাঁর সেই কাণ্ডের ভিডিয়ো রেকর্ড হয়েছিল স্টাম্প ক্যামেরায়। স্মিথের সেই ঘটনা দেখার পর থেকেই ক্রিকেট সমর্থকদের কাছে তিনি ফের সমালোচনার পাত্র হয়ে ওঠেন। এদিন স্মিথ একটি সাক্ষাৎকারে বলেন,”আমি এই ধরণের আলোচনা শুনে হতাশ। আমি তো পিচ বোঝার জন্য গিয়েছিলাম। আমাদের বোলাররা কোন লাইনে বোলিং করছে ও ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা কীভাবে খেলছে সেসব খতিয়ে দেখছিলাম। এটা তো আমার অভ্যেস। আমি মাঝেমধ্যেই এটা করি। এর পিছনে আলাদা কোনও কারণ নেই। এই ব্যাপারটাকে নিয়ে কেন এত আলোচনা হচ্ছে আমি বুঝতে পারছি না। আমি কোনও উদ্দেশ্য নিয়ে ক্রিজে পা দিয়ে ঘষিনি। পন্থের ক্রিজ মার্ক তুলে দেওয়ার জন্য আমি কিছুই করিনি।”

অবশ্য তার এই কান্ডকে খানিক চাপা দেওয়ার চেষ্টা করেছেন অধিনায়ক টিম পেইন। তার গলাতেও একই সুর,”আমি স্মিথের সঙ্গে এই নিয়ে কথা বলেছি। ও মিডিয়া রিপোর্ট নিয়ে হতাশ। স্মিথকে যারা টেস্ট ক্রিকেট খেলতে দেখেছেন তারা জানেন, ও এমনটা করেই থাকে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ছাড়া শেফিল্ড শিল্ড টুর্নামেন্টেও ও ব্যাটিং ক্রিজে গিয়ে মার্ক করে। আসলে ও আগে থেকেই ঠিক করে রাখে, পরের ইনিংসে কোথায় স্টান্স নেবে! এটা ওর পুরনো অভ্যেস। সেদিন ও পন্থের ক্রিজ মার্ক মেটানোর কোনও চেষ্টা করেনি।”

তবে সেদিন যাই হয়ে থাকুক ক্রিসে টিকে থাকার লড়াইয়ে ঋষভ যে প্রাণ পাত করা পরিশ্রম করেছিলেন তা স্পষ্ট প্রমান করেছে তার পারফরমেন্স এবং রানের সংখ্যা।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: