Health

আরও সঙ্কটময় ফেলুদা, আশঙ্কা ব্রেন ডেথের !

চলছে সকল রকম চেষ্টা, কিন্তু নেমে যাচ্ছে তাঁর চেতনা স্তর

দেবশ্রী কয়াল : কোনোমতেই সুস্থ হয়ে উঠতে পারছেন না সকলের প্রিয় অপু। শত চেষ্টার পরেও চিৎিসাতে সাড়া দিচ্ছেন না রহস্য ভেদ করা সেই ফেলুদা। ক্রমশ তাঁর স্বাস্থ্যের অবনতি ঘটছে। উৎসবের দিন সকালবেলা বর্ষীয়ান অভিনেতা সৌমিত্র চ্যাটার্জীর (Soumitra Chatterjee) শারীরিক অবস্থা নিয়ে যে তথ্য আজ চিকিৎসকরা প্রকাশ করলেন তা মানুষের উদ্বেগ বাড়িয়ে দেওয়ার জন্যে একেবারে যথেষ্ট। সকলের প্রিয় অপু হয়ত এবার ক্রমশ ব্রেন ডেথের (Brain Death)দিকে এগোচ্ছেন। তাঁর শারীরিক অবস্থা খুবই সঙ্কটজনক হয়ে রয়েছে। চিকিত্‍সকেরা জানাচ্ছেন, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের চেতনার স্তর বর্তমানে পাঁচে নেমে এসেছে। আর এই স্তর যদি তিনে পৌঁছে যায়, তাহলে ব্যক্তির ব্রেন ডেথ সুনিশ্চিত করেন চিকিত্‍সকরা। আর এই খবর জানার পর থেকেই সকলের মন হয়ে উঠেছে ভারাক্রান্ত, করে চলেছে কেবল প্রার্থনা।

দীর্ঘ প্রায় এক মাস ধরে হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে চলেছেন বর্ষীয়ান অভিনেতা সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। এ ক’দিনে তাঁর শারীরিক অবস্থার কখনো উন্নতি হয়েছে, আবার কখনও অবনতি ঘটেছে। তাঁর অসুস্থ হয়ে পড়ার খবর প্রকাশিত হতেই অনুরাগীরা প্রতিনিয়ত তাঁর সুস্থতা প্রার্থনা করে চলেছেন। তবে এবার বেলভিউ হাসপাতালের (Bellevue Nursing Home) চিকিত্‍সক অরিন্দম কর সৌমিত্র বাবুর স্বাস্থ্য সম্পর্কিত যে তথ্য দিলেন, তাতে তাঁর অনুরাগীদের মনে রীতিমতো হতাশা ভর করলো। ক্রমশ ক্ষীণ হয়ে আসছে যেন সকল আশা।

বেলভিউ হাসপাতালের চিকিত্‍সকেরা জানালেন, গত বুধবার তাঁর ট্র্যাকিওস্টমি করানো হয়েছিল। এরপর আচ্ছন্ন ভাব কাটিয়ে তোলার জন্য বৃহস্পতিবার তাঁর প্লাজমাফেরেসিস করানো হয়। এতদিন তার চেতনার স্তর যেখানে ৯ থেকে ১০-এর মধ্যে ছিল, কিন্তু প্লাজমাফেরেসিস করানোর পর থেকেই তা আচমকা নিচের দিকে নামতে শুরু করে, আর নামতে নামতে তা এখন পঞ্চম স্তরে এসে ঠেকেছে। বর্তমানে তার হৃদস্পন্দন স্বাভাবিকের তুলনায় অনেকটাই বেড়ে গিয়েছে, কিডনির অবস্থাও ক্রমশ অবনতির দিকে এগোচ্ছে।

অভিনেতার চেতনা স্তরের অবনতি চিকিত্‍সকদের উদ্বেগ অনেকটাই বাড়িয়ে দিয়েছে। চিকিত্‍সকরা জানিয়েছেন, দীর্ঘ এক মাসের মধ্যে চলতি সপ্তাহের শুক্রবারেই তাঁর অবস্থার এতখানি অবনতি হয়েছে। বর্তমানে তাকে সুস্থ করে তোলার সবরকম প্রচেষ্টার চালানো হচ্ছে। কিন্তু সেভাবে চিকিৎসায় তিনি সাড়া দিচ্ছেন না বরং আরও বেশি তার অবনতি ঘটে চলেছে।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: