Nation

গার্হস্থ্য অশান্তির শিকার যে মহিলারা এবার তাদের পাশে দেশের শীর্ষ আদালত

তিন বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছে, গার্হস্থ্য হিংসার আইন অনুসারে বাড়ির বউ-এর শ্বশুরবাড়িতে বসবাসের অধিকার রয়েছে।

পল্লবী কুন্ডু : বর্তমান সময় প্রায় বেশিরভাগ ঘরেই গার্হস্থ্য অশান্তির(Domestic Unrest) শিকার হন মহিলারা। মানসিক অত্যাচার থেকে শারীরিক নির্যাতন কোনোকিছু থেকেই বাদ পড়েন না তারা। একাধিক ক্ষেত্রে সু-বিচার টুকু পাননা তারা। তবে এবার সেইসব মহিলাদের পাশে দাঁড়িয়েছে দেশের শীর্ষ আদালত। বৃহস্পতিবার একটি মামলার রায় দানকালে সুপ্রিম কোর্টের (Supreme Court) বিচারপতি অশোক ভূষণ, আর সুভাষ রেড্ডি এবং এমআর শাহের বেঞ্চ জানিয়েছে, গার্হস্থ্য হিংসার আইন অনুসারে বাড়ির বউ-এর শ্বশুরবাড়িতে বসবাসের অধিকার রয়েছে।

২০০৫ সালের গার্হস্থ্য হিংসা আইনে যে ‘শেয়ার্ড হাউসহোল্ড'(Shared Household)-এর কথা বলা হয়েছে, সে অনুসারে স্বামীর কোনও আত্মীয় বা যৌথ পরিবারের নামেও যদি বাড়ির মালিকানায় থাকে, তাহলেও এই অধিকার দাবি করতে পারবেন মহিলারা। তবে সেক্ষেত্রে শর্ত রয়েছে। বিয়ের পর থেকে শ্বশুরবাড়িতে দীর্ঘ সময় ধরে ‘পরিবারের সদস্য হিসেবে কাটানোর’ ইতিহাস থাকতে হবে তাঁর, তবেই ‘শেয়ার্ড হাউসহোল্ড’ হিসেবে বিবেচিত হবে তা।

তিন বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছে, এদেশে গার্হস্থ্য প্রতিহিংসার ঘটনা প্রায়শই ঘটে থাকে। কিন্তু অধিকাংশ ক্ষেত্রেই এসব মামলায় অভিযোগ দায়ের হয় খুব কম। অনেকক্ষেত্রে আবার বাড়ির বউ-এর ওপর অত্যাচার করে তাকে ঘর থেকে বের করে দেওয়ার মতোও ঘটনা ঘটে। তবে শীর্ষ আদালতের এই রায়দানের পর অনেক মহিলাই আজ নিশ্চিন্ত।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: