Economy Finance

আবারও কর্মী ছাঁটাই সুইগিতে, মাথায় হাত ৩৫০ জন এক্সিকিউটিভের

দুমাস আগেই হাজারের উর্দ্ধে হয়েছিল কর্মী ছাঁটাই, আবারও সেই পথে সুইগি

দেবশ্রী কয়াল : করোনার প্রকোপে সবাই আজ। প্রত্যেক ক্ষেত্রে পড়েছে তার প্রভাব। লকডাউনের জেরে চাকরি গেছে বহু মানুষের। বর্তমান দিনে আবারও একবার, করোনা ভাইরাস ও লকডাউনের কোপে আবারও পড়তে হল জনপ্রিয় ফুড অ্যাপ সুইগিকে। আর একবার সুইগি থেকে ছাঁটাই করা হল ৩৫০ জন এক্সিকিউটিভকে। গত দু’‌মাস আগেই ১,১০০ কর্মীকে ছাঁটাই করা হয়েছিল এই ফুড অ্যাপের পক্ষ থেকে। সেই সময় ফুড ডেলিভারি অ্যাপের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছিল যে এটাই চূড়ান্ত ছাঁটাই ছিল, এরপর আর কোনও ছাঁটাইয়ের পথে হাঁটবে না তারা। কিন্তু আবারও সেই পথেই সুইগি। আবার হটাৎ করে কর্মী চাঁটাইয়ে মাথায় হাত পড়েছে এক্সিকিউটিভদের।

এদিন সুইগি তাদের এক বিবৃতিতে বলেন, ‘‌মে মাসে, আমরা আমাদের ব্যবসা ও প্রতিষ্ঠানের ভবিষ্যতের কথা ভেবে ছাঁটাই করেছিলাম, কিন্তু এখন সংস্থার ব্যবসা সবেমাত্র ৫০ শতাংশতে পৌঁছেছে, তাই আমাদের বাধ্য হয়েই এই শেষ চূড়ান্ত কর্মী সঙ্কোচন করতে হল। যার জেরে ৩৫০ জন চাকরি খোয়ালেন।’ এরই সাথে সুইগির পক্ষ থেকে বলা হয়, ছাঁটাই হওয়া সকল কর্মীরা কমপক্ষে তিনমাসের বেতন পাবেন এবং তার সঙ্গে ‌ডিসেম্বর পর্যন্ত স্বাস্থ্য বীমার সুবিধাও পাবেন। তারা প্রতি বছর প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে অতিবাহিত করার জন্য অতিরিক্ত একমাসের টাকাও পাবেন।

এখন প্রশ্ন উঠছে, কেবল তিন মাসের বেতন আর বীমার উপর ভরসা করেই কী তাঁদের জীবন অতিবাহিত হয়ে যাবে ? কিভাবে চলবে তাঁদের সংসার ? বারবার লকডাউনের প্রকোপ পড়ছে সকল সংস্থায়। কোথাও নেই চাকরি। এখন হটাৎ করে এই ৩৫০ জন কোথায় কাজ খুঁজবে ? কীভাবে চালাবে নিজেদের সংসার ?

Tags
Show More

Related Articles

Back to top button
Close
Close
%d bloggers like this: