Nation

একুশে নির্বাচনের আগে রাজ্যে গরু ও কয়লা পাচার চক্রের ওপর কড়া নজরদারি সিবিআই-এর

গরু ও কয়লা পাচার চক্রের বিরুদ্ধে এবার সোচ্চার হয়েছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআই

পল্লবী কুন্ডু : আসন্ন নির্বাচনের আগে রাজ্যের দুর্নীতিতে আলোকপাত কেন্দ্রের। গরু ও কয়লা পাচার চক্রের বিরুদ্ধে এবার সোচ্চার হয়েছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআই। সংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে ইতিমধ্যেই কাজ শুরু করে দিয়েছে সিবিআই(Central Bureau of Investigation)। গরু পাচারকাণ্ডে রাজ্যের ছয় পুলিশকর্তাকে নোটিশ ধরিয়েছে কেন্দ্রের তদন্তকারী সংস্থা। তাঁদের নিজাম প্যালেসে হাজিরা দিতে বলা হয়েছে। গত ডিসেম্বর মাসে এক ডিআইজি-সহ বিএসএফের ৪ অফিসারকে নোটিশ পাঠায় সিবিআই। যে চারজনকে নোটিস পাঠানো হয়েছিল তাঁদের মধ্যে ছিলেন, একজন ডিআইজি, ২ জন অ্যাসিস্ট্যান্ট কমান্ডান্ট এবং একজন ডেপুটি কমান্ড্যান্ট পদমর্যাদার অফিসার ছিলেন।

তবে এর আগেই এই বিষয়কে কেন্দ্র করে বিএসএফের কমান্ড্যান্ট সতীশ কুমারকে ইতিমধ্যেই গ্রেফতার করেছে সিবিআই। সিবিআই সূত্রের খবর, গরু পাচার কাণ্ডে প্রথমে বিএসএফ কমান্ড্যান্ট সতীশ মিশ্র এবং পরবর্তী সময়ে এনামুল হকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের জেরা করে সিবিআই। তাদের কাছ থেকেই বিনয় মিশ্রের নাম উঠে আসে বলে সূত্রের খবর। সেই বিষয়কে ভিত্তি করেই আদালত থেকে সার্চ ওয়ারেন্ট বের করে তাঁর বাড়িতে চল্লাশি চালায় কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। কিন্তু সেই মুহূর্তে বিনয় মিশ্র দুবাই চলে গেছেন বলেই অভিযোগ।

তাঁকে না পাওয়া যাওয়ায় লুকআউট নোটিশ জারি করেছে সিবিআই ইতিমধ্যেই। অন্যদিকে, বিনয় মিশ্রকে ঘিরে অভিযোগ উঠছে রাসবিহারীর বাড়িতে রাতের অন্ধকারে বড় বড় ট্রাঙ্কে টাকা ঢুকতো এবং পরে তা অন্য জায়গায় পাঠানো হত। আর সেই কারণেই ওই বাড়ির সিসিটিভি রেকর্ডও চেক করছে সিবিআই। পাশাপাশি অন্যদিকে, তলবের বিরুদ্ধে এবার পাল্টা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হচ্ছেন দুই আইপিএস।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: