Health

দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা কমলো, আক্টিভ রোগীর সংখ্যা অবিস্বাশ্যভাবে হ্রাসপ্রাপ্ত

শীগ্রই শুরু হচ্ছে টিকাকরণ, তারমধ্যেই খুশির সংবাদ স্বাস্থ্য আধিকারিকদের

মধুরিমা সেনগুপ্ত : করোনা(Corona virus) মারণরোগের টিকাকরণ শুরু হতে আর বেশিদিন বাকি নেই। আর তার মাঝেই খুশির খবর দিলো কেন্দ্রীয় স্বাস্থমন্ত্রক। দৈনিক করোনা সংক্রমণের সূচক হয়েছে নিম্নগামী। জুন মাস থেকে এই প্রথম রেকর্ড সংক্রমণ কমলো দেশের। গত বছরের সেপ্টেম্বরেই দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা ছিল ৯০ হাজার বা তারও বেশি। সেই স্থান থেকে এদিন দৈনিক সংক্রমণের সূচক এক লাফে নেমে এসেছে ১৩ হাজারে।অর্থাৎ সংক্রমণ যে দিন দিন অনেকটাই কমছে এমনটাই আশা করছেন সাস্থকর্মীরা। এছাড়াও সক্রিয় রোগীর সংখ্যাও অবিস্বাশ্যভাবে কমছে বলে জানা যাচ্ছে যেটা এই কিছুদিন আগেও ছিল আড়াই লাখ ছিল। এদিন তা নেমে দাঁড়িয়েছে ২ লাখে। একটিভ কেসের হার কমে হয়েছে ২.০৭% ।

সাধারণ মানুষের মনে অনেকটাই স্বস্তির ছায়া দেখতে পাওয়া যাচ্ছে। হাবরার বাসিন্দা গৃহবধূ স্মিতা গাঙ্গুলি এদিন বলেন, “কমলেই তো ভালো। এভাবে তো আর চলা যাচ্ছে না। যত তাড়াতাড়ি টিকাকরণ শুরু হচ্ছে ততই তো ভালো।” গড়িয়াহাটের এক প্রসাধনী দ্রব্য বিক্রেতা রাজু মাইতি বলেন, “গত বছর ব্যবসার যা ক্ষতি হলো! ঠাকুরের কৃপায় সবকিছু এবছরই কমে গেলে ব্যবসাটা হয়তো একটু লাভের মুখ দেখতে পারে। “

কোভিড আক্রান্তদের মৃত্যুর সংখ্যাও দিনদিন কমছে বলে জানা যাচ্ছে অর্থাৎ দৈনিক মৃত্যু দুশোর নীচে নেমেছে। তবে বাকি রাজ্যগুলিতে সংক্রমণ কমলেও কেরল, মহারাষ্ট্র, অন্ধ্রপ্রদেশে এখনো সংক্রমণের হার বেশিই। আইসিএমআর(ICMR) অর্থাৎ ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব মেডিক্যাল রিসার্চের পরিসংখ্যান বলছে দেশে ১৮ কোটির বেশি কোভিড টেস্ট করা হয়েছে যার মধ্যে সুস্থতার হারও বেড়েছে। আজ দেশের ১২টি শহরে কোভিশিল্ড টিকা পৌঁছে দিচ্ছে পুণের সেরাম ইনস্টিটিউট। আগামী ১৬ জানুয়ারি থেকে টিকাকরণ শুরু হচ্ছে দেশে। মোট ৫৬ লাখ ৯০ হাজার টিকার ডোজ পৌঁছে যাবে বিভিন্ন শহরে যার মধ্যে আজকেই বিকেলের মধ্যে কলকাতাতে ৬.৯ লাখ কোভিশিল্ড টিকার ডোজ চলে আসবে বলে জানা যাচ্ছে।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: