Science & Tech

প্রান্তের অস্ত্বিত্ব রয়েছে শুক্র গ্রহে, এমনটাই ধারণা বিজ্ঞানীদের

গ্রহের মেঘে রয়েছে ফসফসিন, তার থেকেই আশাবাদী বিজ্ঞানীরা

দেবশ্রী কয়াল : এই প্রথম ২০২০তে বোধ হয় মিলছে কোনো ভালো খবর। এবারের ঘটনা গ্রহকে নিয়ে। শুক্র গ্রহকে নিয়ে বড় ধারণা করছেন বিজ্ঞানীরা। সেখানে নাকি থাকতে পারে প্রাণের অস্তিত্ব। এবারে শুক্র গ্রহকে ঘিরে রাখা মেঘে ফসফিন গ্যাসের অস্তিত্ব শনাক্ত করেছেন বিজ্ঞানীরা। যা থেকেই তাঁদের ধারণা, এই গ্রহটিতে অণুজীবের অস্তিত্ব থাকতে পারে। এমনিতে শুক্র গ্রহের মেঘ খুব অম্লীয়।

এই গ্রহের মেঘে ফসফিনের অস্তিত্ব খুঁজে পেয়েই আশাবাদী হয়ে উঠেছেন বিজ্ঞানীরা। কারণ, এই গ্যাস পৃথিবীতে উত্‍পন্ন হয় ব্যাকটেরিয়া থেকে। অক্সিজেন রয়েছে এমন পরিবেশে থাকা ব্যাকটেরিয়া এই গ্যাস নিঃসরণ করে। যদি শুক্র গ্রহে ফসফিনের অস্তিত্বের পেছনে এমন কোনো কারণ থেকে থাকে তাহলে, সেখানে প্রাণের উত্‍পত্তি বিকাশের পরিবেশ রয়েছে বলে আশাবাদী হচ্ছেন বিজ্ঞানীরা।

রয়টার্স সুত্রে খবর, এখনও অবশ্য বিজ্ঞানীরা কোনও প্রাণের অস্তিত্ব শনাক্ত করতে পারেননি। যুক্তরাষ্ট্রের হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জে স্থাপিত জেমস ক্লার্ক ম্যাক্সওয়েল টেলিস্কোপের সাহায্যে ফসফিন গ্যাসের অস্তিত্ব শনাক্ত করে কার্ডিফ ইউনিভার্সিটি ইন ওয়েলসের জ্যোতির্বিজ্ঞানী জেন গ্রিভসের নেতৃত্বে পরিচালিত একটি দল। পরে চিলির অ্যাটাকামা লার্জ মিলিমিটার, সাবমিলিমিটার অ্যারে রেডিও টেলিস্কোপের সাহায্যে পর্যবেক্ষণ করে বিষয়টি সম্পর্কে নিশ্চিত হন তাঁরা। তাই এখন গ্রহে প্রাণের অস্তিত্ব রয়েছে কিনা তা আবিষ্কার করতেই উদ্বিগ্ন বিজ্ঞানীরা।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: