Sports Opinion

সুপারে ওভারে জিত ব্যাঙ্গালোরের, তবে দর্শকের মন কেড়েছে ঈশান কিশান

এক দুর্ধর্ষ ম্যাচ আবারও আইপিএলে, প্রতি মুহূর্তে পাল্টাচ্ছিল খেলার রূপ

দেবশ্রী কয়াল : গতকালের আইপিএল ম্যাচ যে রুদ্ধশ্বাস এর মতো তা বলা বাহুল্য। শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত দর্শকের দৃষ্টি আটকে রেখেছিল ব্যাঙ্গালোর ও মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। গতকাল মুখোমুখি হয়েছিল বিরাটের রয়্যাল চ্যালেঞ্জর্স ব্যাঙ্গালোর আর ক্যাপ্টেন রোহিতের মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। আবার এও বলা যেতে পারে, কাল খেলা হয়েছিল অধিনায়ক বিরাট কোহলি বনাম সহ অধিনায়ক রোহিত শর্মা। যাঁরা এই মুহূর্তে দেশের সবথেকে দুই গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়। এদিনের ম্যাচে আইপিএলে আবারও হয় সুপার ওভার। যাতে বাজিমাত দেয় বিরাট বাহিনী।

গতকাল খেলায় প্রথমে ব্যাটিং করে, ২০২ রান এর টার্গেট খাড়া করে ব্যাঙ্গালোর। এবং মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেয় ২০৩ রানের। যদিও এদিনের খেলতে আবারও সবার আশাকে ব্যর্থ করে মাত্র ৩ রানে আউট হয়ে যান অধিনায়ক বিরাট কোহলি। তবে, অ্যারন ফিঞ্চ, এবি ডিভিলিয়ার্স, দেবদত্ত পাডিকেলের ব্যাটে ভর করে 200 রানের গন্ডি পার করে আরসিবি।

এদিকে এক বড় রান তাড়া করতে গিয়ে প্রথমেই মুম্বই ইন্ডিয়ান্স খায় বড় ধাক্কা। উইকেট পড়তে থাকায় চাপের মুখে পড়ে রোহিতের দল। অধিনায়ক রোহিত শর্মার 8 রান এবং সূর্য কুমার যাদবের শূন্য রানে ফিরে যাওয়ার পরেই দেওয়ালে পিঠ ঠেকে যাওয়ার মত অবস্থা হয়েছিল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের। সেই সময় দলের দায়িত্ব নিজের কাধে তুলে নেন এবার আইপিএলে প্রথম ম্যাচ খেলা ঈশান কিশান। দায়িত্ব নিয়ে জয়ের দোরগোড়ায় পৌঁছে দেয় মাধ্যমে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সকে। অবশ্যই তাঁর সাথে যোগ দেন পোলার্ড। দুজনের দুর্দান্ত পারফর্মেন্সের জন্যই খেলা পৌঁছায় সুপার ওভার অবধি।

দিন অবশ্য প্রথম একাদশে ছিল না ঈশান কিশানের নাম। খেলার কথা ছিল সৌরভ তেওয়ারির, কিন্তু ম্যাচ শুরুর পূর্বে সৌরভ তেওয়ারি পুরোপুরি ফিট না হওয়ায় তাঁর বদলে সুযোগ এসে যায় ঈশান কিশানের কাছে। আর এই সুযোগের একদম সঠিক ব্যবহার করেন ঈশান কিশান। এবার আইপিএলে প্রথম ম্যাচে খেলতে নেমেই মাত্র 58 বলে 99 রানের ইনিংস খেললেন ঈশান কিশান। মারেন ছ’টি বিশাল বিশাল ছক্কা। তবে ম্যাচের একেবারে শেষ লগ্নে উদানার বলে বড় শট খেলতে গিয়ে, দলকে জেতাতে গিয়ে আউট হয়ে যান ঈশান কিশান। গতকালের ওই ছক্কাটি মারলে মুম্বই ইন্ডিয়ান্স শুধু জিতে যেত না, হাত তাঁর সেঞ্চুরিও। কিন্তু সেঞ্চুরির একেবারে সামনে গিয়েও সেঞ্চুরি করা হল না তার। এরপরেই নিজের ওপর রাগে হতাশায় শূন্যে ব্যাট ছুড়তেও দেখা গেল তাকে। তবে এইদিন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স ম্যাচ হারলেও ঈশান কিশানের দুর্দান্ত ব্যাটিং পারফরম্যান্স মন জিতে নিয়েছে কোটি কোটি ক্রিকেটভক্তদের।

এরপর পরিস্থিতি দাঁড়ায় সুপার ওভারের। মুম্বই ইন্ডিয়ানসের তরফ থেকে মাঠে নামেন, পোলার্ড ও হার্দিক পান্ডিয়া। ইকবাল বাকি থাকতেই আউট হন পোলার্ড, মাঠে নামেন রোহিত শর্মা। সুপার ওভারে মাত্র ৭ রান করে মুম্বই, এবং ৮ রানের চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেয় ব্যাঙ্গালোরের দিকে। এরপর দুটো ৪ আর দুটো সিঙ্গেল নিয়ে ম্যাচ জিতে নেয় রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। ম্যাচ জয়ের পর অধিনায়ক বিরাট কোহলি বলেন, “ভাষা হারিয়ে ফেলেছি, রোলার কোস্টারের মতো ওঠানামা করছিল ম্যাচের ভাগ্য। এবি দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছে ওর যত প্রশংসা করা যায় ততই কম। এছাড়াও আমাদের বোলারাও এই ম্যাচে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স করেছে। টোটাল টিম গেম খেলে সঠিক পরিকল্পনা মাফিক আমরা এই ম্যাচ জিতে নিয়েছি।”

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: