Weather

একরাতেই অনেকটা নামল পারদ, কিন্তু দিনের বেলা রইল আর্দ্রতাজনিত অস্বস্তি

ক্রমশ নামবে পারদের মান, শীতের আমেজ অনুভব করবে বঙ্গবাসী

দেবশ্রী কয়াল : ধীরে ধীরে শীতের আগমন হচ্ছে বঙ্গে, যার পূর্বাভাস আগেই দিয়ে দিয়েছিল আলিপুর আবহাওয়া দফতর(Alipur Metrological Department)। একরাতেই কলকাতায়(Kolkata) তাপমাত্রা কমেছে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াসেরও বেশি। মৌসম ভবনের(Mausam Bhawan) পূর্বাভাস আগামী চারদিনের মধ্যে পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলিতে প্রায় ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত কমতে পারে উষ্ণতা। রাজধানী দিল্লি-সহ উত্তর-পশ্চিম ভারতের বেশ কিছু রাজ্যে শৈত্যপ্রবাহের সতর্কতাও দিয়েছে হাওয়া অফিস। মৌসম ভবনের পূর্বাভাস, আগামী ৪৮ ঘণ্টায় দিল্লি, হরিয়ানা, পাঞ্জাব এবং উত্তর রাজস্থানে শৈত্যপ্রবাহ হতে পারে।

কলকাতায় এখনও পর্যন্ত জাঁকিয়ে শীত (Winter) না পড়লেও বাতাসে রয়েছে হেমন্তের শিরশিরানি। গতকাল বেলা গড়ানোর পর আকাশ পরিষ্কার হতেই একধাক্কায় ২ ডিগ্রি বেশি পারদ পতন হয়েছে শহরে। গতকাল সন্ধ্যায় কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২৪.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। রাতের মধ্যে কমে সেটাই হয়েছে ২২.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আজ দিনের বেলায় শহরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা পৌঁছতে পারে ৩৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে ২ ডিগ্রি বেশি। বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ সর্বোচ্চ ৯০ শতাংশ এবং সর্বনিম্ন ৫১ শতাংশ।

তবে আবহাওয়া দফতর তরফে জানা যাচ্ছে, রাতের পর থেকে ভোর পর্যন্ত তাপমাত্রা কমার ফলে শিরশিরানি থাকলেও দিনের বেলায় কিন্তু আর্দ্রতাজনিত অস্বস্তি বজায় থাকবে। আলিপুর জানিয়েছে, আজ অর্থাত্‍ বুধবার থেকে দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায় ধীরে ধীরে তাপমাত্রা কমার সম্ভাবনা রয়েছে। সপ্তাহ শেষে শহর ও শহরতলির তাপমাত্রা ২০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নীচে নামবে বলেই অনুমান করছেন আবহবিদরা। দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় পারদ পতনের পাশাপাশি উষ্ণতা কমবে উত্তরের জেলাগুলিতেও।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
%d bloggers like this: